রাস্তা নিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়া নিয়ে বিরোধ কোটচঁদপুরে সেচ্ছাসেবকলীগ ও ছাত্রলীগের হামলায় আহত ইউপি চেয়ারম্যান

Share Now..


স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহঃ
ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে সেচ্ছাসেবকলীগ ও ছাত্রলীগ কর্মীদের হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন আ’লীগ নেতা ও বলুহর ইউনয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন। এ সময় পাল্টাপাল্টি হামলায় আরো দুইজন আহত হন। সোমবার দুপুরে ছাত্রলীগ ও সেচ্ছাসেবকলীগের নেতাকর্মীরা ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে ঢুকে এলাপাথাড়ী ভাবে হাতুড়িপেটা করেন মতিনকে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে প্রথমে কোটাচঁদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। পুলিশ ও এলাকাবাসি সুত্রে জানা গেছে, চেয়ারম্যানের তত্বাবধানে করা একটি রাস্তার নির্মান কাজ নিয়ে ফেসবুক আইডিতে খারাপ মন্তব্য করেন কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক লিমন। ফেসবুকে পিতার বিরুদ্ধে বাজে কথা লেখা দেখে প্রতিবাদ করেন চেয়ারম্যানের ছেলে হৃদয়। এ নিয়ে সোমবার সকালে কোটচাঁদপুরের বলুহর বাসষ্ট্যান্ডে লিমনের সাথে তর্কবিতর্কে লিপ্ত হয় হৃদয়। এক পর্যায়ে দুপুরে কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক লিমন, পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি আল আমিন ও জাহাঙ্গীর দলবল নিয়ে বলুহর গ্রামে গিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে অতর্কিত হামলা চালায়। দাপ্তরিক কাজে ব্যস্ত থাকা চেয়ারম্যান আব্দুল মতিনকে বিষয়টি খেয়াল করেননি। এই সুযোগে হামলাকারীরা হাতুড়ি পেটা করে চেয়ারম্যানের মাথা ফাটিয়ে দেয়। খবর পেয়ে চেয়ারম্যানের ছেলে হৃদয় ঘটনাস্থলে পৌছে জাহাঙ্গীর ও লিমনের দুই সহযোগীকে পিটিয়ে আহত করে। লিমন হোসেনের পাল্টা হামলায় চেয়ারম্যানের ছেলে হৃদয়ও আহত হন। স্থানীয়রা আহতদেরকে উদ্ধার করে কোটচাঁদপুর হাসপাতালে ভর্তি করে। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কোটচাঁদপুর থানার ওসি মঈন উদ্দীন জানান, এঘটনায় থানায় একটি মামলা হয়েছে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে লিমন হোসেন ও জাহাঙ্গীর আলমকে আটক করেছে। বর্তমান পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.