শ্রীলঙ্কার পিটিএ বাতিলের আহ্বান জানিয়ে ইইউ পার্লামেন্টে প্রস্তাব গ্রহণ

Share Now..

শ্রীলঙ্কার সন্ত্রাসবাদ প্রতিরোধ আইন (পিটিএ) বাতিল করার আহ্বান জানিয়ে একটি প্রস্তাব গ্রহণ করেছে ইউরোপীয় পার্লামেন্ট। আইনটি কনভেনশনগুলোর সঙ্গে বেমানান বলে মনে করা হচ্ছে। যা দ্বীপপুঞ্জটির জন্য অনুমোদিত জেনারালাইজড স্কিম অফ প্রেফারেন্সের (জিএসপি +) অধীনে কার্যকর করতে হবে। বার্তা সংস্থা এএনআইয়ের প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে খবর প্রকাশ করেছে ইয়াহু নিউজ।

সেখানে বলা হয়েছে, ৭০৫ সদস্য বিশিষ্ট আইনসভায় প্রস্তাবের পক্ষে ভোট পরেছে ৬২৮টি এবং বিপক্ষে পরেছে ১৫টি। আর ভোট দেওয়া থেকে বিরত থেকেছে ৪০ জন। গত বৃহস্পতিবার (১০ জুন) প্রস্তাবটি গ্রহণ করা হয়।

ইইউ সংসদ ইউরোপীয় ইউনিয়ন কমিশনকে ইউরোপীয় বাজারে শ্রীলঙ্কার অগ্রাধিকারযোগ্য প্রবেশের অস্থায়ী প্রত্যাহার বিবেচনা করার আহ্বান জানিয়েছে। যা পোশাক, সিরামিক এবং রাবারসহ শ্রীলঙ্কার রফতানির জন্য বাণিজ্য শুল্ককে উল্লেখযোগ্য হারে হ্রাস করবে।

ইউরোপীয় কমিশনার অফ ইক্যুয়ালিটির হেলেনা ডাল্লি বলেন, আমরা সাংবিধানিক সুরক্ষা অপসারণ দেখতে পাই, জবাবদিহিতার অভাব দেখি, মানুষকে বাদ দেওয়ার জন্য আমরা বক্তৃতা দেখি, দেখি নাগরিক সমাজকে বাদ দেওয়া হচ্ছে এবং আমরা সক্রিয়তাবাদী, লেখক এবং আরো অনেককে আটকানোর জন্য সন্ত্রাসবাদ প্রতিরোধ আইনের ব্যবহার দেখতে পাই।
ইউরোপীয় ইউনিয়নকে অবশ্যই নির্বিঘ্নে সর্বজনীন অধিকার রক্ষা করতে হবে। এই সন্ত্রাসবাদ আইনের আওতায় যারা আটক রয়েছে তাদের সুষ্ঠু বিচার করা উচিত। যদি তাদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রমাণিত না হয়, তাহলে অবিলম্বে মুক্তি দিতে হবে, যোগ করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.